লগইন রেজিস্ট্রেশন

লেখক আর্কাইভ

 

ভালোবাসা ভালোবাসি

লিখেছেন: ' আবু আনাস' @ শনিবার, মার্চ ২৭, ২০১০ (৮:৫৪ অপরাহ্ণ)

আস-সালামু আলাইকুম, সকল প্রশংসা আল্লাহ’র জন্য, শান্তি অবতীর্ণ হোক মুহাম্মাদ (সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম) এর প্রতি। পরম করুণাময়-দয়াশীল আল্লাহ’র নামে শুরু করছি -
১.
ভালোবাসা ব্যাপারটা আমার কাছে একটা চরম কুহেলিকার মত লাগত। অবশ্য শুধু আমি না রবীন্দ্রনাথের মত মানুষও ভালোবাসার দার্শনিক বিচার করতে গিয়ে ঘোল খেয়েছে -

সখী, ভালোবাসা কারে কয় ! সে কি কেবলই যাতনাময় ।
সে কি কেবলই চোখের জল ? সে কি কেবলই দুখের শ্বাস .....

টি মন্তব্য  |  বিস্তারিত >>

রজম – একটি চিন্তা

লিখেছেন: ' আবু আনাস' @ বৃহস্পতিবার, মার্চ ১৮, ২০১০ (১:০৪ অপরাহ্ণ)

আস-সালামু আলাইকুম, সকল প্রশংসা আল্লাহ’র জন্য, শান্তি অবতীর্ণ হোক মুহাম্মাদ (সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম) এর প্রতি। পরম করুণাময়-দয়াশীল আল্লাহ’র নামে শুরু করছি -

বর্তমান যুগে অনেককে বলতে শুনেছি যে ইসলামিক আইন এ যুগে অচল, তা অমানবিক। এখন এই ব্লগেও পেলাম কাউকে যারা মনে করেন রজম অমানবিক। আমি আগেও দেখেছি রজম কিছু মানুষের গায়ে আগুন ধরিয়ে দেয় কারণ এটার প্রয়োগের জন্য ইসলামের মোটামুটি সর্বোচ্চ পর্যায় প্রয়োজন হয়। একটা সমাজ যখন এমনভাবে বদলে যায় যে ব্যভিচার করে একটা পুরুষ/নারী এসে সেই .....

১০ টি মন্তব্য  |  বিস্তারিত >>

হাজ্ব বিষয়ক একটি প্রশ্ন

লিখেছেন: ' আবু আনাস' @ সোমবার, মার্চ ৮, ২০১০ (৫:৫৮ অপরাহ্ণ)

কিছুদিন আগে এক ছোট ভাই নিচের প্রশ্নটি পাঠায় –

“অধিকাংশ ক্ষেত্রেই, আমরা যা দেখি যে চারপাশের মানুষজন (এখনো পর্যন্ত আমিও) দুনিয়াবি কাজেই ব্যস্ত হয়ে আছে। মোটামুটি বেশিরভাগ মানুষের মধ্যবয়েসের পরে একটা ধর্মের প্রতি টান আসে। তারা হজ্ব পালন করেন আর তার পরে মোটামুটি পরিপূর্ণ ইসলামী জীবনযাপন করেন। আমি যেটুকু জানি তা হলো হজ্ব পালনের পরে মানুষ শিশুর ন্যায় পবিত্র হয়ে যায়। কাজেই হজ্ব পালনের পরে পরিপূর্ণ ইসলামী জীবন কাটালে তাদের নিষ্পাপ অবস্থায় মৃত্যু হচ্ছে। এখন সেই অবস্থায়, তারা কি কবরের .....

টি মন্তব্য  |  বিস্তারিত >>

বিচারদিবসে প্রথম যে বিষয়টির হিসাব নেয়া হবে

লিখেছেন: ' আবু আনাস' @ রবিবার, ফেব্রুয়ারি ২৮, ২০১০ (১১:৩২ অপরাহ্ণ)

আস-সালামু আলাইকুম, সকল প্রশংসা আল্লাহ’র জন্য, শান্তি অবতীর্ণ হোক মুহাম্মাদ (সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম) এর প্রতি। পরম করুণাময়-দয়াশীল আল্লাহ’র নামে শুরু করছি -

বিচারদিবসে প্রথম যে বিষয়টির হিসাব নেয়া হবে তা হল, নামাজ। যদি এটি শুদ্ধভাবে কবুল হয় তবে তার সকল আমল শুদ্ধ বলে ধরা হবে। আর যদি এটা বরবাদ হয়ে যায় তখন সকল আমলই বরবাদ হয়ে যাবে। হাদীসে এসেছে :

আনাস ইবনে হাকীম আদ-দবী যিনি যিয়াদ অথবা ইবনে যিয়াদের ভয়ে মদীনাতে এসেছিলেন ও আবু হুরাইরা রা. এর সাথে সাক্ষাত .....

টি মন্তব্য  |  বিস্তারিত >>

অবিশ্বাসীদের নরকবাস – একটি খোলা চিঠি

লিখেছেন: ' আবু আনাস' @ রবিবার, ফেব্রুয়ারি ২৮, ২০১০ (১০:৫৩ অপরাহ্ণ)

আস-সালামু আলাইকুম ভাইয়া,

সকল প্রশংসা আল্লাহ’র জন্য, শান্তি অবতীর্ণ হোক মুহাম্মাদ (সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম) এর প্রতি। পরম করুণাময়-দয়াশীল আল্লাহ’র নামে শুরু করছি।

তুমি যে প্রশ্নটা করেছ তা বহু পুরনো। এ ব্যাপারটা একসময় আমার কাছেও অস্বস্তিকর মনে হয়েছিল যে একটা মানুষ শুধু ইহুদী বা খ্রিষ্টান বা অমুসলিম হবার কারণে অনন্তকাল নরকের আগুনে পুড়ে শাস্তি পাবে তা কিভাবে হয়? তার চেয়েও অনেক দুষ্ট কোন মানুষ মুসলিমের ঘরে জন্মগ্রহণ করার কারণে সব কিছুতে পার পেয়ে যাবে – এটা কি সুবিচার? এর উত্তরটা হয়ত খুব .....

টি মন্তব্য  |  বিস্তারিত >>

ঈদে মিলাদুন্নবি – একটি জঘন্য প্রথা

লিখেছেন: ' আবু আনাস' @ শনিবার, ফেব্রুয়ারি ২৭, ২০১০ (১২:০৪ পূর্বাহ্ণ)

গোড়ায় গলদঃরসুলুল্লাহ (সাঃ) থেকে স্বীয় জন্ম তারিখ সম্পর্কে কোন বিবরণ পাওয়া যায়না। তাঁর জীবনীকার দের মধ্যে তিনি কবে জন্ম গ্রহণ করেছেন তা নিয়ে মতভেদ আছে। অনেকের মতে তার জন্মদিন হল ১২ রবিউল আউয়াল। আবার অনেকের মতে ৯ রবিউল আউয়াল। কিন্তু আসলে কোনটা ঠিক?

সহীহ হাদীস নির্ভর বিশুদ্ধতম সীরাতগ্রন্থ হল ‘আর-রাহীক আল-মাখতূম’। রসুলুল্লাহ (সাঃ) এর জন্ম দিবস সম্পর্কে এ গ্রন্থে বলা হয়েছে – “রসুলুল্লাহ (সাঃ) ৫৭১ খৃস্টাব্দে ৯ রবিউল আউয়াল মোতাবেক ২০ এপ্রিল সোমবার প্রত্যুষে জন্ম গ্রহণ করেন।”
এ যুগের .....

টি মন্তব্য  |  বিস্তারিত >>

কাক বাবা-মা’র গল্প

লিখেছেন: ' আবু আনাস' @ শনিবার, ফেব্রুয়ারি ২০, ২০১০ (১:০০ পূর্বাহ্ণ)

১.
ছোটবেলায় সাধারণ জ্ঞানের বইয়ে পড়া একটা প্রশ্ন প্রায়ই মনে পড়ে – “কোন পাখি বাসা বানাতে না পেরে পরের বাসায় ডিম পাড়ে?” উত্তর ছিল কোকিল। কাক খাবার সংগ্রহের পন্থায় প্রতিভাবান এবং প্রচেষ্টায় প্রাণান্তী। হেথা-সেথা থেকে দিনমান যুদ্ধ করে যোগাড় করে আনা খাবার সে পরম মমতায় সদ্য ফোটা ছানাগুলোর লাল লাল মুখে তুলে দিচ্ছে, তিন তলার জানালা দিয়ে এ দৃশ্য বহুবার দেখেছি। হয়তো তার মনে আশা ছিল এই ছানাগুলো বড় হলে উঁচু ইউক্যালিপ্টাস গাছ থেকে নেমে আসা বড় চিলটাকে সে আচ্ছা .....

১১ টি মন্তব্য  |  বিস্তারিত >>

স্টুপিড কিউপিড অথবা ভ্যালেন্টাইনের দিবস

লিখেছেন: ' আবু আনাস' @ বুধবার, ফেব্রুয়ারি ১০, ২০১০ (৮:২৪ পূর্বাহ্ণ)

আস-সালামু আলাইকুম, সকল প্রশংসা আল্লাহ’র জন্য, শান্তি অবতীর্ণ হোক মুহাম্মাদ (সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম) এর প্রতি। পরম করুণাময়-দয়াশীল আল্লাহ’র নামে শুরু করছি -

সত্যিকার মুসলিম আসলে কারা? যারা নিজেদের সীমাবদ্ধতা এবং সৃষ্টিকর্তার অসীম ক্ষমতা অনুভব করে নিজেদের আল্লাহর ইচ্ছার কাছে সমর্পণ করে। এই আত্মসমর্পণের অর্থ সন্তুষ্টিচিত্তে আল্লাহর পথ নির্দেশনা মেনে নেয়া যাতে উভয় জীবনেই শান্তি ও নিরাপত্তা লাভ করা যায়। জীবনব্যবস্থা হিসেবে ইসলাম সম্পুর্ণ – এর মূলনীতিগুলো সময় কিংবা স্থানের সাপেক্ষে পরিবর্তনশীল নয়, তা চিরায়ত। ইসলাম আমাদের যা দিয়েছে তা স্বয়ংসম্পুর্ণ .....

টি মন্তব্য  |  বিস্তারিত >>

আলিমদের আদব

লিখেছেন: ' আবু আনাস' @ বৃহস্পতিবার, ফেব্রুয়ারি ৪, ২০১০ (৯:৩২ অপরাহ্ণ)

আস-সালামু আলাইকুম, সকল প্রশংসা আল্লাহ’র জন্য, শান্তি অবতীর্ণ হোক মুহাম্মাদ (সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম) এর প্রতি। পরম করুণাময়-দয়াশীল আল্লাহ’র নামে শুরু করছি -

নিচের অংশটুকু শায়খ নাসিরুদ্দিন আল আলবানির “হাযিহি দাওয়াতুন্না” অর্থাৎ “ইহা আমাদের আহবান” শীর্ষক একটি বক্তৃতার প্রথম অংশ থেকে অনুবাদ করলাম। এটা পড়লে বুঝতে কষ্ট হবেনা যে প্রকৃত আলিমদের কাছ থেকে শুধু ইসলামই নয় ভদ্রতাও শিখার আছে।

ইব্রাহিমঃ বিসমিল্লাহ, সমস্ত প্রশংসা আল্লাহর এবং শান্তি অবতীর্ণ হোক মুহাম্মাদ (সাঃ) এর উপর। অতঃপর, আল্লাহ সুবহানাহু আমাদের ঈমান দিয়ে সৌভাগ্যবান করেছেন এবং সমগ্র .....

টি মন্তব্য  |  বিস্তারিত >>

শ্রেণীশত্রু

লিখেছেন: ' আবু আনাস' @ মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারি ২, ২০১০ (১০:৩৬ অপরাহ্ণ)

স্বাধীনতার পরে ভারতের নকশালবাদীদের দ্বারা উদ্বুদ্ধ হয়ে বাংলাদেশে মাওবাদী-সাম্যবাদী আন্দোলনের একটা জোয়ার বয়ে গিয়েছিল। বিপ্লবের নামে চরমপন্থার সেই অনাচারের বর্ণনা বামপন্থীদের ইতিহাস/গল্প/উপন্যাসেই বেশ পাওয়া যায়। এদের চিন্তাধারার মধ্যে সবচেয়ে ভয়াবহ ছিল শ্রেনীশত্রু নিধনের ব্যাপারটি। আর শ্রেণীশত্রু নিধনের ক্ষেত্রে সবচেয়ে নৃশংস ছিল “শ্রেনীশত্রু”-এর সংজ্ঞা দেয়ার ব্যাপারটি। মোটামুটি অবস্থাপন্ন কৃষকদের জোতদার তথা শ্রেনীশত্রু নাম দিয়ে খুন ও তারপর সম্পত্তি লুট করা এরা বৈপ্লবিক কর্তব্য মনে করত। এই আদর্শের পাশবিক অনৈতিকতা দেখে যদি কেউ তার বিরোধিতা করত তবেও সেও একজন শ্রেনীশত্রু হয়ে যেত। .....

১১ টি মন্তব্য  |  বিস্তারিত >>