লগইন রেজিস্ট্রেশন

ইকরামুল মুসলিমীন

লিখেছেন: ' habib008' @ শুক্রবার, জুলাই ২৯, ২০১১ (৮:৩৮ অপরাহ্ণ)

একজন মানুষ আরেকজন মানুষকে সম্মান করতে পারলে বা তাকে সঠিক মূল্যায়ন করতে পারলে তাদের মধ্যে পারস্পরিক শ্রদ্ধাবোধ বাড়ে। তখন তা মানুষের পারিবারিক সামাজিক জীবনে শান্তি ও সুখ আনতে সহায়ক হয়। জীবন আনন্দময় হয়ে উঠে। আর যদি পারস্পরিক সম্মান বোধ না থাকে তাহলে অন্য জনের প্রতি অবজ্ঞা অবহেলা অবমূল্যায়ন মানুষের জীবনে স্থান করে নেয়। যার ফল হিসেবে মানুষের পারিবারিক সামাজিক জীবনে অশান্তি নেমে আসতে বাধ্য।
বুখারী ও মুসলিমে আনাস রাযি. থেকে বর্ণিত হয়েছে, রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম ইরশাদ করেন: لَا تَبَاغَضُوا، وَلَا تَدَابَرُوا، وَلَا تَنَافَسُوا، وَكُونُوا عِبَادَ اللَّهِ إِخْوَانًا ‘তোমরা পরস্পরে বিদ্বেষপরায়ণ হয়ো না, একে অন্যের পেছনে লেগো না এবং পরস্পরে প্রতিহিংসায় লিপ্ত হয়ো না, বরং একে অন্যের সাথে ভাই-ভাই ও এক আল্লাহর বান্দা হয়ে যাও’
আবু হুরায়রা রাযি. থেকে বর্ণিত, রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম ইরশাদ করেন: مَنْ نَفَّسَ عَنْ مُؤْمِنٍ كُرْبَةً مِنْ كُرَبِ الدُّنْيَا، نَفَّسَ اللَّهُ عَنْهُ كُرْبَةً مِنْ كُرَبِ يَوْمِ الْقِيَامَةِ، وَمَنْ سَتَرَ مُسْلِمًا سَتَرَهُ اللَّهُ فِي الدُّنْيَا وَالْآخِرَةِ، وَمَنْ يَسَّرَ عَلَى مُعْسِرٍ، يَسَّرَ اللَّهُ عَلَيْهِ فِي الدُّنْيَا وَالْآخِرَةِ، وَاللَّهُ فِي عَوْنِ الْعَبْدِ مَا كَانَ الْعَبْدُ فِي عَوْنِ أَخِيهِ ِ ‘ যে ব্যক্তি যে ব্যক্তি কোনও মুমিনের পার্থিব কষ্টসমূহ থেকে কোনও একটি কষ্ট দূর করবে কিয়ামতের কষ্টসমূহ থেকে আল্লাহ তার একটি কষ্ট দূর করবেন। যে ব্যক্তি কোনও মুমিনের দোষ গোপন রাখবে, আল্লাহ তা‘আলা দুনিয়া ও আখিরাতে তার দোষ গোপন রাখবেন, যে ব্যক্তি কোনও অভাবীকে দুনিয়াতে ছাড় দেবে আল্লাহ তাআলা তাকে দুনিয়া ও আখিরাতে ছাড় দেবেন। আর আল্লাহ তাআলা বান্দার সাহায্য করেন যতক্ষণ সে তার ভাইয়ের সাহায্য করে’ (আহমদ,সহীহ)।
কিন্তু দুঃখ জনক হলেও সত্য যে আমরা আজ ইসলামের এই শিক্ষা থেকে অনেক দূরে সরে গিয়ে একে অন্যের ক্ষতি সাধনের পেছনে লেগে থাকি। কারো উন্নতি দেখলে তাকে হিংসা করি। নিজের একটু ক্ষতি হলেও যেখানে অন্যের উপকার করার কথা সেখানে আমরা নিজের ক্ষতি হয় না এমন বিষয়েও মানুষের উপকার করতে চাই না। একে অন্যকে যে কোনোও ভাল কাজে বাধা দেওয়ার চেষ্টা করি । যা মোটেও উচিত নয়।

ইসলামের শিক্ষা হচ্ছে এক মুসলমান আরেক মুসলমানের ভাই। হাদিসে আছে, সকল মুমিন-মুসলমান মিলে একটি দেহের মতো, দেহের কোনও এক স্থানে আঘাত পেলে তা সারা দেহেই ছড়িয়ে পড়ে।”

আর আল্লাহ তালা বলেন
“إِنَّمَا الْمُؤْمِنُونَ إِخْوَةٌ فَأَصْلِحُوا بَيْنَ أَخَوَيْكُمْ وَاتَّقُوا اللَّهَ لَعَلَّكُمْ تُرْحَمُونَ” (سورة الحجرات:10). মুমিনরা তো পরস্পর ভাই-ভাই। অতএব, তোমরা তোমাদের দুই ভাইয়ের মধ্যে মীমাংসা করবে এবং আল্লাহকে ভয় করবে-যাতে তোমরা অনুগ্রহপ্রাপ্ত হও।
ভোগের মধ্যে যে আনন্দ আছে তার চেয়ে অনেক অনেক বেশি আনন্দ আছে ত্যাগের মধ্যে। তা বাস্তব অভিজ্ঞতা না হলে কেও উপলব্দি করতে পারে না। ত্যাগের সেই আনন্দ উপভোগ করার জন্য মানুষের বিশাল মনের অধিকারি হওয়া প্রয়োজন। সংক্ষির্ণ মনের মানুষেরা ত্যাগের আনন্দ উপভোগ করতে পারে না। ত্যাগের সেই আনন্দের কথাই বলেছেন কবি তার ভাষায়,

”পরের কারণে স্বার্থ দিয়া বলি, এ জীবন মন সকলই দাও
তার মতো সুখ কোথাও কি আছে? আপনার কথা ভুলিয়া যাও।
আপনারে লয়ে বিব্রত রহিতে আসে নাই কেহ অবনী পরে’
সকলের তরে সকলে আমরা, প্রত্যেকে আমরা পরের তরে।”

ইসলাম মানুষের সুন্দর ও সুখের জীবন যাপনের জন্য এবং আল্লাহ তালার সন্তুষ্টি অর্জনের জন্য বার বার অন্যের উপকার করার কথা বলেছে। ইসলামের এই শিক্ষা আমরা যদি মেনে চলতাম তাহলে আমাদের সমাজে মারা-মারি, হানা-হানি, হিংসা-বিদ্বেষ আর অশান্তি থাকতো না। পরিবার হয়ে উঠতো সান্তির নীড়, সমাজ ও রাষ্ট্রে বিরাজ করতো জান্নাতি পরিবেশ। এমনকি গোটা পৃথিবী হয়ে উঠত শান্তি ও সুখের আবাস ভূমি।

Processing your request, Please wait....
  • Print this article!
  • Digg
  • Sphinn
  • del.icio.us
  • Facebook
  • Mixx
  • Google Bookmarks
  • LinkaGoGo
  • MSN Reporter
  • Twitter
১০৬ বার পঠিত
1 Star2 Stars3 Stars4 Stars5 Stars ( ভোট, গড়:০.০০)

৪ টি মন্তব্য

  1. ইসলাম মানুষের সুন্দর ও সুখের জীবন যাপনের জন্য এবং আল্লাহ তালার সন্তুষ্টি অর্জনের জন্য বার বার অন্যের উপকার করার কথা বলেছে। ইসলামের এই শিক্ষা আমরা যদি মেনে চলতাম তাহলে আমাদের সমাজে মারা-মারি, হানা-হানি, হিংসা-বিদ্বেষ আর অশান্তি থাকতো না। পরিবার হয়ে উঠতো সান্তির নীড়, সমাজ ও রাষ্ট্রে বিরাজ করতো জান্নাতি পরিবেশ। এমনকি গোটা পৃথিবী হয়ে উঠত শান্তি ও সুখের আবাস ভূমি। (Y)

    habib008

    @মুসাফির, আপনাকে অনেক অনেক অনেক ধন্যবাদ।

  2. জাযাকাল্লাহ, সুন্দর হয়েছে (F)

    habib008

    @anamul haq, অনেক ধন্যবাদ। (F)