লগইন রেজিস্ট্রেশন

কওমি মাদ্রাসা সম্পর্কে কালের কণ্ঠের মিথ্যাচারের প্রতিবাদ

লিখেছেন: ' habib008' @ বৃহস্পতিবার, অগাষ্ট ৪, ২০১১ (১০:০০ অপরাহ্ণ)

২রা আগস্ট ২০১১ দৈনিক কালের কণ্ঠে প্রকাশিত একটি রিপোর্টে কওমি মাদ্রাসা গুলোকে জঙ্গি কারখানা বলে যে রিপোর্ট ছাপা হয়েছে তা ডাহা মিথ্যা উদ্দেশ্য প্রণোদিত এবং ইসলাম বিদ্বেষ প্রসূত। যুগ যুগ ধরে কওমি মাদ্রাসা গুলো এদেশের মুসলমানদের সন্তানদেরকে দীনি শিক্ষা দিয়ে আসছে। কোনোও দিন মারা-মারি হানা-হানির কারণে মাদ্রাসা বন্ধ হয়েছে এমন নজির নাই। অথচ কলেজ বিশ্ববিদ্যালয় গুলোতে ধর্ষণের সেঞ্চুরি করা সহ মারা মারি প্রায় লেগেই থাকে। মারা-মারির কারণে প্রায় শুনা যায় কলেজ বিশ্ববিদ্যালয় গুলো বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। অথচ কালের কণ্ঠ কলেজ বিশ্ব বিদ্যালয় গুলোকে জঙ্গি না বলে বলছে মাদ্রাসা গুলোকে। এর চেয়ে মিথ্যা আর কি হতে পারে?
আমরা কালের কণ্ঠকে এবং সরকারকে অনুরোধ করবো কওমি মাদ্রাসা গুলোর দরজা সব সময় খোলা। গিয়ে দেখে আসুন সেখানে কি করা হয়। না দেখে মিথ্যা কেও বলবেন না আর তা বিশ্বাসও করবেন না।
দেশের জনগণ ভাল করেই জানে। কওমি মাদ্রাসা গুলোতে কোরান হাদিস পড়ানো হয় । সাথে সাথে বাস্তব জীবনে কোরান হাদিস মতে আমল করে দেখানোর এক উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত হচ্ছে এই কওমি মাদ্রাসা গুলো। যা অন্য অনেক ইসলামি প্রতিষ্ঠানেও বিরল। উপমহাদেশে এই কওমি মাদ্রাসা গুলোই হচ্ছে মুসলিম জনগণের ইমান-আক্বীদার রক্ষা কবচ। তাই ইহুদি নাছারাদের দালালরা কওমি মাদ্রাসা সম্পর্কে মিথ্যা অপবাদ দিয়ে জনগণকে ইসলাম থেকে দূরে সরানোর চেষ্টায় রত দীর্ঘ দিন ধরে।
কিন্তু শয়তানেরা যতই ইসলাম ও মুসলমানদের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করুক না কেন, তাদের সেই ষড়যন্ত্র ব্যর্থ করে আল্লাহ তালা এই কওমি মাদ্রাসা গুলোকে দিন দিন উন্নতি দিবেন। يُرِيدُونَ أَن يُطْفِئُوا نُورَ اللَّـهِ بِأَفْوَاهِهِمْ وَيَأْبَى اللَّـهُ إِلَّا أَن يُتِمَّ نُورَهُ وَلَوْ كَرِهَ الْكَافِرُونَ তারা তাদের মুখের ফুঁৎকারে আল্লাহর নূরকে নির্বাপিত করতে চায়। কিন্তু আল্লাহ অবশ্যই তাঁর নূরের পূর্ণতা বিধান করবেন, যদিও কাফেররা তা অপ্রীতিকর মনে করে। সুরা তৌবা ৩২ ,
শেখ সাদি রহঃ বলেন এটা আল্লাহর চেরাগ। যে কেও এটা ফু দিয়ে নেভাতে চেষ্টা করবে তাদের দাড়ি পুড়ে যাবে কিন্তু চেরাগ নিভানো যাবে না।
আমরা কালের কণ্ঠের এই হলুদ সাংবাদিকতার ঘৃণা ভরে নিন্দা জানাই।

কওমি মাদ্রাসা সম্পর্কে বিভিন্ন অপবাদের সুন্দর জবাব দিয়েছেন আমাদের সোনার বাংলাদেশ ব্লগের একজন ব্লগার, চট্টগ্রাম ওমর গনি এম ই এস কলেজের অধ্যাপক ডঃ আ ফ ম খালিদ হোসেন দেখুন ভিডিওতে

http://www.youtube.com/watch?v=FYsxAXjVsCY

Processing your request, Please wait....
  • Print this article!
  • Digg
  • Sphinn
  • del.icio.us
  • Facebook
  • Mixx
  • Google Bookmarks
  • LinkaGoGo
  • MSN Reporter
  • Twitter
২২৬ বার পঠিত
1 Star2 Stars3 Stars4 Stars5 Stars (ভোট, গড়: ৫.০০)

১৩ টি মন্তব্য

  1. আমরা কালের কণ্ঠের এই হলুদ সাংবাদিকতার ঘৃণা ভরে নিন্দা জানাই।

    habib008

    @মুসাফির, অনেক ধন্যবাদ।

  2. আল্লাহ তাদের অন্তকরণ এবং তাদের কানসমূহ বন্ধ করে দিয়েছেন, আর তাদের চোখসমূহ পর্দায় ঢেকে দিয়েছেন। আর তাদের জন্য রয়েছে কঠোর শাস্তি।
    আমরা কালের কণ্ঠের এই হলুদ সাংবাদিকতার ঘৃণা ভরে নিন্দা জানাই। সহমত

    habib008

    @রাসেল আহমেদ, অনেক ধন্যবাদ।

  3. উপমহাদেশে এই কওমি মাদ্রাসা গুলোই হচ্ছে মুসলিম জনগণের ইমান-আক্বীদার রক্ষা কবচ। তাই ইহুদি নাছারাদের দালালরা কওমি মাদ্রাসা সম্পর্কে মিথ্যা অপবাদ দিয়ে জনগণকে ইসলাম থেকে দূরে সরানোর চেষ্টায় রত দীর্ঘ দিন ধরে। পবিত্র রমজানে কালের কন্ঠের সাংবাদিক যে জঘন্যতম প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে, তা ক্ষমার অযোগ্য।মুসলমানদের দেশে এ দরনের সংবাদ প্রকাশের সাহস পেলো কি করে?

    habib008

    @এম এম নুর হোসেন, অনেক ধন্যবাদ।

  4. কোন দেশে যে বাস করি রে ভাই? :(

    habib008

    @manikroton অবাক লাগে।

  5. অনেক শুকরিয়া। ইহুদি-নাসারা-মুশরেকেরা তাদের আদিপত্য বিস্তার ও প্রধানত ইসলামের বিরুধিতা করার উপায় হিসাবে এদেশে খুজে পায় অনেক নাম মাত্র মুলসমান। এরাই তাদের এজেন্ট। তারা আমাদের ঘরের ভিতর থেকে সহজে ইসলামের বিরূধিতা করার সুযোগ পায়।এরকম চলতে থাকলে দাঁড়ি টুপি নিয়ে এদেশে বাস করা কঠিন হয়ে পড়বে।
    আমরা অবশ্যই তাদেরকে চিননিত করতে পারি এবং এদেরকে বয়কট করতে পারি।রাছুলুল্ল্হ(সাঃ)কে ব্যাংগ করার পর আমি এদেশের একটি পত্রিকা পড়ি না-(ইন্টারনেটও না)।

    হাফেজ মোঃ আল্-আমিন

    @Mujibur Rahman,
    ভাই আপনার মন্তব্য পড়ে খুব কষ্ট পেলাম। আমরা যদি পত্রিকাগুলি না পড়ি তাহলে তো এরা আরো সুযোগ পেয়ে যাবে। মুসলমান খরগুসেরা আজ গুমিয়ে আছে। এই সুযোগে ইহুদি, নাছারা কচ্ছপেরা এগিয়ে যাচ্ছে। আসুন আমরা সচেতন হইঅ।িয়ে আছে। এই সুযোগে ইহুদি, নাছারা কচ্ছপেরা এগিয়ে যাচ্ছে। আসুন আমরা সচেতন হইঅ।

    habib008

    @Mujibur Rahman, অনেক ধন্যবাদ।

  6. এই দিক থেকে চিন্তা করলে অবশ্য ঠিক বলেছেন। তবে আমরা কখন পারতপক্ষে ইহুদি-নাসারা-মুশরেকদের আর্থিকভাবে লাভবান হয় এমন কাজ করব না, তাদের পন্য বর্জন করব। এটা একটা মারাত্বক ঔষধ-ওদের প্রতিহত করার।

    habib008

    @Mujibur Rahman, অনেক ধন্যবাদ।