লগইন রেজিস্ট্রেশন

ফুটবল ও আমরা

লিখেছেন: ' মেরিনার' @ বুধবার, মার্চ ৩১, ২০১০ (৭:২৩ পূর্বাহ্ণ)

বলের কি কিছু বলার থাকে – কে তাকে
নিয়ে কিভাবে খেলবে? কখন খেলবে?
কিভাবে লাথি মারবে? অথবা, সে কি
কখনো তার নিয়তি বেছে নিতে পারে?
সে তো একটি পা থেকে যেতে পারে
কেবল আরেকটি পায়েই। সে আশা করতে পারে
একসময় বিরতি হবে; হয়তো বা জীর্ণ হলে
সে পরিত্যক্ত হতেও পারে। যৌবনের টাইট
বাঁধুনি ঢিলে-ঢালা হলেই বুঝি তার মুক্তি!
আমাদের, মানুষদের তবু তাতেও মুক্তি নেই।

এদেশের মানুষকে নিয়ে যারা খেলে –
মানুষ তাদের বেছে নিতে পারে।
একজন মানুষ কোন পায়ে লাথি খাবে,
অন্তত সেটুকু বেছে নিতে পারে – এও কি কম প্রাপ্তি?
এও কি মানব জনমের কম সার্থকতা?

যৌবনের অবসানে কান্ত বৃদ্ধ তাকিয়ে দেখে
গোধূলি লগ্নের পশ্চিম আকাশের দিকে, ভাবে
খেলা অবসানের বাঁশী বাজার আর কত বাকী?
এতদিনে সে জেনে গেছে, খেলোয়াড় বদল হলেও
তার আর মুক্তি নেই – খেলোয়াড় মরে গেলেও
তার কোন লাভ নেই। পৃথিবীর আনাচে কানাচে –
নর্থ-সাউথ, হার্ভার্ড বা টেনেসিতে – তাকে নিয়ে খেলতে,
সতত তৈরী হচ্ছে নতুন নতুন খেলোয়াড়।
অবশ্য সে বেছে নিতে পারবে, কার পায়ে তার খেলা।
“গ্রেট লীডার” না “ডিয়ার লীডারের” দল? ডিজিটাল
না এনালগ দল, নিকটবর্তী না দূরবর্তী প্রভুর দল!
মানব জনমের এও কি কম সার্থকতা? কম প্রাপ্তি??

আজই সে তার ভ্যানগাড়ীখানা সাইড করে দেখে এলো,
নৌকা প্রদর্শনী হচ্ছে সুশীল নাগরিকদের জাদুঘরে।
তার প্রপিতামহের জীবিকার মাধ্যম নৌকা, তার সাধের
নৌকা আজ জাদুঘরে স্থান পাচ্ছে। তার প্রবেশাধিকার
এক রকম নেই জেনেও ইচ্ছা ছিল ছুঁয়ে দেখে।
গেটে সবুজ লতাপাতা পোষাক দেখে, ভয়ে এতটুকুন হয়ে গেলো
তার পরিশ্রান্ত ও ক্ষীণ প্রাণ। সাহেব-মেমসাহেবেরা
কত কায়দায় ছবি তুলছে “লাইফ সাইজ“ নৌকার।
তবু তার বুক কান্নায় ভেঙে আসে, এ যে প্রাণহীন মৃত নৌকা –
বাহারী ছবি তোলা গেলেও, ডাঙ্গার এ নৌকা তো চলবার নয়!
এখন সে বড়জোর প্রার্থনা করতে পারে, এসব খেলার
চির অবসান, অথবা, নিজের মৃতপ্রায় জীবনের অবসান চেয়ে।

Processing your request, Please wait....
  • Print this article!
  • Digg
  • Sphinn
  • del.icio.us
  • Facebook
  • Mixx
  • Google Bookmarks
  • LinkaGoGo
  • MSN Reporter
  • Twitter
৪৩ বার পঠিত
1 Star2 Stars3 Stars4 Stars5 Stars (ভোট, গড়: ৩.৬৭)