লগইন রেজিস্ট্রেশন

ইসলামী আকীদা ৩

লিখেছেন: ' মুসাফির' @ মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারি ১, ২০১১ (১১:২৮ পূর্বাহ্ণ)

৪৬। ওলীগণ আল্লাহর নিকটতম বান্দা।
৪৭।তারা মর্যাদায় নবীগণ ও সাহাবায়ে কেরাম থেকে নিচে।
৪৮। ওলীগনের কেরামত সত্য ।
৪৯। পূর্ব পুরুষদের প্রতি সম্মান প্রদর্শন এবং চার ইমামের তাক্বলীদ করা জরুরী বিষয়।
৫০।আমরা আল্লাহর সকল ফিরিস্তাগণের প্রতি ঈমান রাখি।
৫১।আমরা আল্লাহ তায়ালার নাযেলকৃত সমস্ত কিতাবাবের উপর ঈমান রাখি।
৫২।আমরা ঈমান রাখি যে, কুরআন কারীম আল্লাহ তায়ালার কিতাব।
৫৩।কুরআন শরীফ নাযেল হওয়ার পূর্বের সমস্ত কিতাব রহিত হয়ে গেছে।
৫৪।শেষ যামানায় ঈমাম মাহদী আঃ এর খেলাফত সত্য।
৫৫।দাজ্জাল ও ইয়াজুজ মাজুজ বের হওয়া সত্য।
৫৬। পশ্চিম দিক দিয়ে সূর্য উদিত হওয়া এবং এক ধরনের প্রাণীর বের হওয়া সত্য।
৫৭। কিয়ামতের অন্যান্য নিদর্শনাবলী এবং শিঙ্গায় ফুঁক দেয়া সত্য।
৫৮। মুনকার নাকীরের প্রশ্ন এবং কবরের আজাব সত্য।
৫৯। মৃত্যুর পর পুনরায় জীবিত হওয়া এবং হাশর সত্য।
৬০। হাউজে কাউছার এবং সুপারিশ সত্য।
৬১। আমল সমুহের ওজন এবং কিতাব সত্য।
৬২। পুলসিরাত, জান্নাত ও জাহান্নাম সত্য।
৬৩।আখেরাতে আল্লাহ তায়ালার দীদার বা সাক্ষাত সত্য।
৬৪।মুমীনদের সর্বদা জান্নাতে এবং কাফেরদের সর্বদা জাহান্নামে থাকা সত্য।
৬৫।ফাসেককে কাফের বলা যাবেনা এবং সে জাহান্নামে সর্বদা থাকবেনা।
৬৬।আল্লাহ তায়ালার আরশ ও সিংহাসন সবচেয়ে বড় সৃষ্টি।
৬৭।লাওহে মাহফুজ, কলম, ও রুহের জগতের অঙ্গিকার সত্য।
৬৮। ইসলামই অাল্লাহ তায়ালার নিকট পছন্দনীয় দ্বীন।
৬৯। ইসলাম ব্যতিত জাহান্নাম থেকে মুক্তির কোন পথ নেই।
৭০।শরীয়তের বিধান চালু করার জন্য আমীর নিযুক্ত করা অপরিহার্য়।
والله أعلم بالثواب

Processing your request, Please wait....
  • Print this article!
  • Digg
  • Sphinn
  • del.icio.us
  • Facebook
  • Mixx
  • Google Bookmarks
  • LinkaGoGo
  • MSN Reporter
  • Twitter
১৪৭ বার পঠিত
1 Star2 Stars3 Stars4 Stars5 Stars (ভোট, গড়: ৫.০০)

৮ টি মন্তব্য

  1. শুকরিয়া , গুরুত্ব পূর্ণ্য লেখা লেখার জন্য ।

    মুসাফির

    @M M NOUR HOSSAIN, আপনাকে ধন্যবাদ।

    jahid

    M M NOUR HOSSAIN, সহমত,

  2. আল্লাহ পাক তিনি কালাম পাক-এ ইরশাদ ফরমান, “তোমরা মুসলমান না হয়ে ইন্তিকাল তথা মৃত্যুবরণ করো না।” অর্থাৎ প্রত্যেক ঈমানদার বান্দাকে অবশ্যই খাঁটি মুসলমান হয়ে তবেই মৃত্যুবরণ করতে হবে। আর খাঁটি মুসলমান হবার তরীক্বা হাদীছ শরীফ-এ বর্ণিত রয়েছে বিভিন্নভাবে। সুনানে ইবনে মাজাহ শরীফ-এ রয়েছে- হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি ইরশাদ ফরমান, “তোমরা আমার ও খুলাফায়ে রাশিদীন রদ্বিয়াল্লাহু তায়ালা আনহুমগণ উনাদের সুন্নতকে গ্রহণ করো এবং খুব মজবুতভাবে সেগুলো ধারণ করো। আর সাবধান! নতুন উদ্ভাবিত সকল বিষয়েই সাবধান সতর্ক থাকো। কেননা নতুন উদ্ভাবিত সকল বিষয়ই গুমরাহী ও পথভ্রষ্টতার কারণ।”এই হাদীছ শরীফ অনুযায়ী মুসলমান হবার বা মুসলমানিত্বকে ধরা রাখার তরীক্বা অতি সহজেই বুঝা যায়। সুন্নাহকে আঁকড়ে ধরে রাখার সাথে সাথে দ্বীনের মাঝে নব্য প্রবেশকৃত গুমরাহী ও পথভ্রষ্টতার ক্রীড়নক- খেলাধুলা, গান-বাজনা, ছবি আঁকা, তোলা, রাখা, দেখা, টিভি চ্যানেলে প্রোগ্রাম করা, তন্ত্র-মন্ত্র করা, দলবাজী করা ইত্যাদি কঠোরভাবে বর্জন করতে হবে অর্থাৎ ছেড়ে দিতে হবে। এটাই পবিত্র কুরআন শরীফ ও সুন্নাহ শরীফ-এর নির্দেশ। যারা মুসলমানিত্বকে ধরে রাখতে চায়, যারা মুসলমানরূপে ইন্তিকাল করতে চায় তাদের জন্য এই নির্দেশ পালন করা এবং তার উপর ইস্তিকামত থাকা সর্বাবস্থায় ফরযে আইন।

  3. very very thank’s for your writing.

    মুসাফির

    @hafes_alamin, yor are welcome.

  4. ধন্যবাদ, সুন্দর লেখার জন্য ।

    মুসাফির

    @jahid, আপনাকেও ধন্যবাদ। (F) (F) (F)